সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩১
ভ্যালেন্টাইন্স সপ্তাহ শুরু

জেনে নিন মোহনীয় ৭ দিনের তাৎপর্য

প্রকাশনার সময়: ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৯:০৮

৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ১৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত এই দিনগুলি বেশ রোম্যান্টিক, লাভ বার্ডসদের উৎসবের দিন। এই দিনগুলিতে বিভিন্নভাবে নিজেদের ভালোবাসা প্রকাশ করে থাকেন তারা। এ কারণেই সপ্তাহটিকে ভালোবাসার সপ্তাহ বলা হয়। এই মোহনীয় সপ্তাহের প্রতিটি দিন তার তাৎপর্য বহন করে এবং বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন ছায়া ও রঙে উদযাপন করা হয়। দম্পতিরা একে অপরের প্রতি তাদের ভালবাসা এবং স্নেহ উদযাপন করতে অধীর আগ্রহে ভ্যালেন্টাইন্স ডে-এর জন্য অপেক্ষা করে।

তবে চলুন জেনে নেওয়া যাক ভ্যালেন্টাইন্স সপ্তাহের প্রতিটি দিনের তাৎপর্য

৭ ফেব্রুয়ারি রোজ ডে-

এই দিনে লোকেরা তাদের কাছের ব্যক্তি, ক্রাশ বা প্রেয়সীদের কাছে ভালেবাসা প্রকাশ করে। ভালোবাসার প্রকাশে আদি-অনন্তকাল ধরে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার হয়ে আসছে গোলাপ। এদিকে গোলাপের আলাদ আলাদা রঙেরও অনেক গুরুত্ব রয়েছে। লাল গোলাপ মানে ভালোবাসা, হলুদ মানে বন্ধুত্ব, গোলাপী মানে কৃতজ্ঞতা ইত্যাদি।

৮ ফেব্রুয়ারি প্রপোজ ডে-

রোজ ডে’র পর আসে প্রপোজ ডে। মনের কথা বলার দিন। এদিন দুরুদুরু বুকে প্রেয়সীকে মনের কথা জানানো হোক কিংবা দীর্ঘদিনের প্রেমিকাকে বিবাহ-প্রস্তাব দেওয়া, মনের বাসনা মুখে আনার জন্য এর চেয়ে ভালোদিন আর কি হতে পারে! সুতরাং যারা এখনও পর্যন্ত পছন্দের মানুষকে জানিয়েই উঠতে পারেননি নিজের ভালোবাসার কথা, এই দিনটি তাদের জন্য সবচেয়ে ভালো সুযোগ।

৯ ফেব্রুয়ারি চকলেট ডে-

রাগ ভাঙানো থেকে শুরু করে মনের কথা জানিয়ে দেওয়া, হাতে চকলেট থাকলেই কেল্লাফতে ৷ ফলে এই বিশেষ দিনে একে অপরকে উপহার হিসাবে চকলেট দেয় প্রেমিক-প্রেমিকারা।

১০ ফেব্রুয়ারি টেডি ডে-

ভ্যালেন্টাইনস সপ্তাহে চকোলট ডে’র পরদিন আসে হ্যাপী টেডি ডে। এদিন ভালবাসার উপহার হিসেবে দেওয়া হয়য় গিফট কার্ড, আংটিসহ দারুণ জনপ্রিয় টেডি বিয়ার। মূলত সঙ্গীকে উপহার হিসাবে টেডি বিয়ার দেওয়া হয়। শুধু ভালোবাসাই নয়, অবসর সময়ে আপনার কথাই মনে করাবে আপনার দেওয়া উপহার।

১১ ফেব্রুয়ারি প্রমিস ডে-

ভালোবাসার মাঝে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে একে অপরের প্রতি বিশ্বাস। আর এই বিশ্বাসপুর্ণ ভালোবাসা মানে সুখে-দুঃখে একসঙ্গে থাকা, যা কঠিন সময়েও সম্পর্ককে আরও দৃঢ় করে। এছাড়াও পরস্পরের প্রতি প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হলে সেই ভালোবাসাটা টিকে থাকার সম্ভাবনা বেশি। তাই এই দিনটি প্রত্যেক প্রেমিক প্রেমিকার জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ দিন। নতুন সম্পর্কে জড়ানোর আগে একে অপরকে প্রতিশ্রুতি দেওয়ার দিন এটি।

১২ ফেব্রুয়ারি হাগ ডে-

প্রিয়জনের বাহুডোরেই ভালোবাসার অনুভূতি সবচেয়ে গাঢ় হয়। প্রেমসাগরে ভেসে বেড়ানো নাবিকরা প্রশান্তি খুঁজে পায় প্রিয়জনের প্রেম মাধুর্য্য আলিঙ্গনেই। বিশেষ এই দিনটি প্রিয়জনকে বাহুডোরে রেখে ভালোবাসার অনুভুতি প্রকাশ করার।

১৩ ফেব্রুয়ারি কিস ডে-

ভালোবাসার সপ্তাহ এর সপ্তম দিবসটি হলো হ্যাপী কিস ডে বা চুম্বন দিবস। কপালে আলতো চুমো থেকে প্রেয়সীর ওষ্ঠে ডুব দেওয়া, প্রেমের অনুভুতি আরও গাঢ় করার অন্যতম পন্থা। এতে সম্পর্কের শীতলতা কাটে, সহজ সমীকরণে বাড়ায় উষ্ণতাও। তাই ভালোবাসার সম্পর্কে একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ হলো চুমু বা কিস। প্রেমের সম্পর্কে অজস্র কথা যা প্রকাশ করতে পারে না তা সহজভাবে বুঝিয়ে দিতে পারে একটি আলতো চুমু।

১৪ ফেব্রুয়ারি ভ্যালেন্টাইন্স ডে-

সবশেষে আসে ভালোবাসার সপ্তাহ এর কাঙ্ক্ষিত ভালোবাসা দিবস। ভালোবাসা দিবসের ইতিহাসটি অনেকেরই জানা। ভালোবাসা সপ্তাহর অন্যান্য দিনগুলো না হলেও অন্তত এই দিনটাতে প্রেমিক-প্রেমিকারা নিজেদের মতো করে উদযাপন করেন। এই দিনে অনেকেই তাদের ভালোবাসার মানুষকে ফুল, চিঠি, কার্ড, গহনা, টেডি প্রভৃতি উপহার প্রদান করে উদযাপন করে থাকে।

বাংলাদেশে এখন ভালোবাসা সপ্তাহ সারা বছরের অপরিচিত শব্দ নয়। তরুণ সমাজ এই দিনগুলোকে এখন বেশ উচ্ছাসের সঙ্গেই পালন করছে। ভালোবাসার সপ্তাহে তাই ভালোবাসার মানুষের সঙ্গে থাকুন, তাদের সাথেই উপভোগ করুন নববসন্তের প্রকৃতি।

নয়াশতাব্দী/ডিএ/একে

নয়া শতাব্দী ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

এ সম্পর্কিত আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

আমার এলাকার সংবাদ

x
Naya Shatabdi