ঢাকা, সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১, ৮ মহররম ১৪৪৬

জামালপুরে সড়ক ভবনে দরপত্র ছিনতাই, কর্মকর্তা ও কর্মচারী লাঞ্চিত

প্রকাশনার সময়: ২০ জুন ২০২৪, ১৭:৪৭

জামালপুরের সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরে একটি দরপত্র ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। বৃহস্পতিবার (২০ জুন) বেলা সাড়ে ১২টার দিকে শহরের সড়ক ও জনপথ ভবনের তৃতীয় তলায় সহকারী প্রকৌশলী মোবারক হোসেনের কক্ষে এই ঘটনা ঘটে।

এসময় অধিদপ্তরের একজন কর্মকর্তা ও একজন কর্মচারী লাঞ্চিত হয়।

তারা হলেন- সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের (সড়ক সার্কেল) সহকারী প্রকৌশলী মোবারক হোসেন ও একই অধিদপ্তরের অফিস সহকারী লক্ষী রাণী।

শেরপুর-জামালপুর বনগাঁও ব্রহ্মপুত্র সেতুর টোল আদায়ের ইজারার জন্য দরপত্রটি চলতি মাসের ১১ তারিখে আহ্বায়ন করা হয় এবং বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১২টা পর্যন্ত দরপত্র জমা দেয়ার শেষ সময় নির্ধারণ করা হয়।

সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের (সড়ক সার্কেল) সহকারী প্রকৌশলী মোবারক হোসেন অভিযোগ করে বলেন-‘১২টা ২০ মিনিটে একটি শিডিউল ড্রপ হয়। সাড়ে ১২টার পর টেন্ডার বাক্স খুলে দরপত্রটি নিয়ে আমার রুমে নিয়ে আসা হয়। দরপত্রটিতে স্মারক নাম্বার দেয়ার সময় ৬ থেকে ৭জন দুর্বৃত্ত এসে অতর্কিত হামলা করে দরপত্রটি ছিনতাই করে। এ সময় তারা আমাকে ও অফিস সহকারী লক্ষী রাণীকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করে।’

জামালপুর সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. নওয়াজিস রহমান বিশ্বাস বলেন- 'দুর্বৃত্তরা এসে অফিসের স্টাফদের লাঞ্চিত করে দরপত্র ছিনতাই করে। এই ঘটনায় আমরা আইনগত ব্যবস্থা নেব। ইতিমধ্যে অভিযোগপত্র লেখার কাজ চলছে।'

জামালপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ মহব্বত কবির মোবাইলে বলেন- 'বিষয়টি শোনার সঙ্গে সঙ্গে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। আমরা এখনো কোনো অভিযোগ পায়নি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।'

গত অর্থ বছর ১৪ কোটি ৪০ লাখ টাকায় সেতুর টোল আদায়ের ইজারা নেন মেসার্স রাব্বি নুর ট্রেডার্স।

নয়াশতাব্দী/এনএইচ

নয়া শতাব্দী ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

মন্তব্য করুন

এ সম্পর্কিত আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • জনপ্রিয়

আমার এলাকার সংবাদ